1. hsmini24@gmail.com : himu :
  2. tofazzal183@gmail.com : tofazzal :
সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ০১:০৬ অপরাহ্ন

না,গঞ্জে প্রথম করোনার ভ্যাকসিন টিকা নিলেন সিভিল সার্জন ডা. ইমতিয়াজ

  • প্রকাশিত : রবিবার, ৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ১৮২

মাজহারুল রাসেল আলোকিত শীতলক্ষ্যা : নারায়ণগঞ্জে জেলা সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ ইমতিয়াজ এর মাধ্যমে করোনার টিকা (ভ্যাকসিন) প্রদান কার্যক্রম শুরু হয়েছে। রবিবার (৭ ফেব্রুয়ারি) সকাল সোয়া দশটার দিকে নারায়ণগঞ্জ জেনারেল (ভিক্টোরিয়া) হাসপাতালে এ টিকা গ্রহণ করেন সিভিল সার্জন। একই সাথে নারায়ণগঞ্জের আরও পাঁচটি কেন্দ্রে শুরু হয়েছে টিকা প্রদান কার্যক্রম।

টিকা গ্রহণ শেষে সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ ইমতিয়াজ সাংবাদিকদের জানান, টিকা গ্রহণের পর ৩০ মিনিট অপেক্ষা করে অবজার্ভ হবে সকলকে। তিনিও অপেক্ষা করেছেন। তবে কোনো ধরনের প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়নি। সকল ভীতি উপেক্ষা করে সর্বসাধারণকে টিকা গ্রহণে উদ্বুদ্ধ করেন তিনি।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, বেলা ১১টা পর্যন্ত ১৪ জন করোনার টিকা গ্রহণ করেছেন। এই কেন্দ্রে প্রথম দিনে ১১০ জনকে টিকা প্রদানের লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে। পুরো জেলায় প্রথম দিন ৬০০ জনের লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে বলে জানান জেলা সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ ইমতিয়াজ।

জেলায় প্রথম পর্যায়ে ১ লাখ ৫৬ হাজার করোনার টিকা (ভ্যাকসিন) কোভিশিল্ড এসেছে। তা সংরক্ষণ করা হয়েছে জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের ছয়টি সরকারি হাসপাতালে। এই ছয় হাসপাতালকে করা হয়েছে করোনার টিকাদান কেন্দ্র।

জেলা করোনা ফোকাল পারসন সদর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা (ইউএইচএফপিও) ডা. জাহিদুল ইসলাম জানান, নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন এলাকায় অবস্থিত কোভিড ডেডিকেটেড নারায়ণগঞ্জ ৩শ’ শয্যা হাসপাতাল ও নারায়ণগঞ্জ জেনারেল (ভিক্টোরিয়া) হাসপাতাল ছাড়াও চারটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে টিকা প্রদান কার্যক্রম একযোগে শুরু হয়েছে। টিকা দেওয়া কর্মসূচি শুরু করার জন্য পূর্বেই সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে বলে জানিয়েছে সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে। উপজেলা পর্যায়ে আগেই করোনার টিকা পৌঁছে দেয়া হয়েছে। স্বাস্থ্যকর্মীদের প্রস্তুত রাখা আছে। আছেন রেড ক্রিসেন্টের স্বেচ্ছাসেবীরা। তাদেরকে টিকা দেওয়ার ব্যাপারে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে।

জেলা সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ ইমতিয়াজ। তিনি বলেন, নিবন্ধন ছাড়া কোনোভাবেই টিকা নেওয়া যাবে না। নিবন্ধন অনুযায়ী প্রথমে যার নাম আসবে তাকেই প্রথম টিকা দেওয়া হবে। তবে নিবন্ধিত স্বাস্থ্যকর্মীদের অগ্রাধিকার দেওয়া হবে বলেও জানান।

এদিকে করোনার এই প্রতিষেধক নিরাপদ ও কার্যকর মন্তব্য করে জেলার সকলকে এটি গ্রহণের জন্য আহ্বান জানিয়েছেন জেলা প্রশাসক (ডিসি) ও কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনেশন কমিটির সভাপতি মো. মোস্তাইন বিল্লাহ। তিনি বলেন, ‘আসুন আমরা করোনার ভ্যাকসিন গ্রহণ করি, সুরক্ষিত থাকি।’

‌↙ সংবাদ-টি শেয়ার করুন ↘

এ-ই বিভাগের আরও অন্যান্য খবর

@আমাদের সাথে যারা…

©২০২১। সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। ‘আলোকিত শীতলক্ষ্যা ডটকম’। আমাদের এ-ই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা,ছবি,ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বে-আইনি।
Theme Customized By BreakingNews