সিদ্ধিরগঞ্জে বসত ঘর ভাংচুর ও মারধরের ঘটনায় মামলা : গ্রেফতার-১

সংবাদটি শেয়ার করুন
0Shares

আলোকিত শীতলক্ষ্যা রিপোর্ট : সিদ্ধিরগঞ্জের মিজমিজি পাইনাদী সিআই খোলা এলাকার কাইয়ুম হোসেন কামাল ও তার স্ত্রী-মেয়ে’কে মারধরের ঘটনায় ৫ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা (নং-২৬) দায়ের করেছে স্ত্রী রুমানা ইয়াছমিন। উক্ত মামলায় মঙ্গলবার রাতে মামলার প্রথম আসামী কবির হোসেন (২৪)’কে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ। গ্রেফতাকৃত কবির হোসেন মাদকদ্রব্য আইনে একাধিক মামলার আসামী। মামলার অন্য আসামীরা হলো আতাউর মোল্লা (৩৮), কামরুল হোসেন (২৪), ইকবাল হোসেন (৩৬) ও সালমা বেগম (২৮)।

বুধবার (২৬ আগস্ট) দুপুরে আসামী কবির হোসেন’কে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, গত ১৫ ই আগষ্ট দুপুরে সিদ্ধিরগঞ্জ মিজমিজি পাইনাদী সিআই খোলা এলাকার মোঃ কাইয়ুম হোসেন কামাল’কে বিভিন্ন প্রকার দেশীয় অস্ত্রে-সস্ত্র নিয়ে বাড়ীতে আসিয়া এলোপাথারী মারপিট করিয়া শরীরের বিভিন্ন স্থানে নীলা-ফুলা জখম করে। তাদের হাতে থাকা লোহার রড ও এসএস পাইপদ্বারা হত্যার উদ্দেশ্যে মাথায় আঘাত করিলে তার বাম হাত দ্বারা ফিরাইতে গেলে হাতের কুনুই ভাঙ্গিয়া মারত্বক হাড় ভাঙ্গা জখম হয়। জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে আসামীরা কাইয়ুম হোসেন কামাল’কে মারধর করে এবং তার বাড়ির-ঘরে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে। এ সময় তার স্ত্রী ও মেয়ে এগিয়ে আসলে তাদেরকেও মারধর করে আসামী পক্ষ। পরে ভুক্তভুগীদের ডাক-চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে আসামী পক্ষ প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে চলে যায়।

এ বিষয়ে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার এসআই রফিউদ্দৌলা জানান, উক্ত মামলার প্রথম আসামী কবির হোসেন’কে গ্রেফতার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে পূর্বেও মাদকদ্রব্য আইনে একাধিক মামলা রয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন
0Shares

আলোকিত শীতলক্ষ্যা

পরিশ্রমকারীব্যক্তি কখনও ব্যর্থ হয়না এগিয়ে যাও সফল হবে।