সিদ্ধিরগঞ্জের সেই নকল সনি স্যামসাং এলজির কারখানা, শতকোটি টাকার পণ্য জব্ধ-আটক ৭

সংবাদটি শেয়ার করুন
0Shares

আলোকিত শীতলক্ষ্যা রিপোর্ট : বিদেশী বিভিন্ন ব্রান্ডের নকল সনি ব্রাভিয়া, এলজি ও স্যামসাংয়ের ইলেকট্রনিক্স পণ্যসহ প্রসাধনী তৈরীর কারখানায় অভিযান চালিয়েছে র‌্যাবের ভ্রাম্যমান আদালত। এসময় অন্তত শতকোটি টাকার নকল প্রসাদনী জব্দ ও কারখানাটি সীলগালা করা হয়েছে। আটক করা হয়েছে কারখানা মালিক বেলায়াতসহ ৭ জনকে।

বৃহস্পতিবার (৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টায় র‌্যাব-৩ এর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসুর নেতৃত্বে সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইল এলাকায় মুনষ্টার মার্কেটিং (প্রাঃ) লিমিটেড কারখানায় এ অভিযান পরিচালনা করা হয়।

আটকরা হলো- মুনষ্টার মার্কেটিং (প্রাঃ) লিমিটেড কারখানার মালিক মোঃ বেলায়েত হোসেন, অপারেটর মোঃ মাঈনুল ইসলাম, আমিনুল ইসলাম, সোহাগ, সিরাজুল ইসলাম, রাজিব জোনায়েদ ও সেল্সম্যান কাউসার।

ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসু বলেন, র‌্যাবের গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে জানতে পারি, সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইল মুনষ্টার মার্কেটিং (প্রাঃ) লিমিটেড কারখানায় বিএসটিআইএর অনুমোদন ও লাইসেন্স ছাড়া অবৈধ ভাবে সিংগাপুর, মালয়েশিয়া, ইন্দোনিসিয়া, ইউকে, ইউএসএ, থাইলেন্ড ও ইন্ডিয়াসহ বিভিন্ন দেশের নামি-দামি কোম্পানির তৈরি বডিস্প্রে ফগ, কোবরা, সিগনেচারসহ ২০ থেকে ৩০ ধরণের প্রসাদনী অবিকল নকল করে মেয়াদহীন কেমিক্যাল দ্বারা তৈরি করে বাংলাদেশে বাজারজাত করছে। এসব প্রসাদনীর সাথে মিথানন নামের নিষিদ্ধ এলকোহল মিশিয়ে তৈরি করায় মানব দেহের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর। এছাড়াও একারখানায় এলেডি, সনি, প্যানাসনিক, এলজিসহ বিভিন্ন ব্রান্ডের টিভি নকল করে প্রতারনামূলক ভাবে বাজারজাত করে আসছে। কারখানায় জব্দকৃত এসব প্রণ্যের আনুমানিক মূল্য ৮০ থেকে ৯০ কোটি টাকা হবে বলে ধারনা করা হচ্ছে। কারখানার মালিকসহ আটকদের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে নিয়মিত মামলা দায়ের করা হবে। অভিযানে র‌্যাব-৩ ও বিএসটিআইএর কর্মকর্তাগণসহ আরো অনেকেই উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন
0Shares

আলোকিত শীতলক্ষ্যা

পরিশ্রমকারীব্যক্তি কখনও ব্যর্থ হয়না এগিয়ে যাও সফল হবে।