ভুয়া সেনা সদস্য মাংস কিনতে গিয়ে থানা পুলিশের হাতে আটক

ভুয়া সেনা সদস্য মাংস কিনতে গিয়ে থানা পুলিশের হাতে আটক

সংবাদটি শেয়ার করুন
0Shares

আলোকিত শীতলক্ষ্যা রিপোর্ট : সেনাবাহিনীর সদস্য পরিচয় বহন করে মাংস কিনতে গিয়ে থানা পুলিশের হাতে আটক হলো ভুয়া সেনা সদস্য আফজাল মিনহাজ সংগ্রাম (৪৮)।

রবিবার জুন ২৮, সকালে পাগলা বাজার থেকে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের সেনাবাহিনীর সদস্য পরিচয়দানকারী সংগ্রাম কে আটক করা হয়েছে বলে পুলিশ জানায়।

আটককৃত ভূয়া সেনাবাহিনীর সদস্য আফজাল মিনহাজ সংগ্রাম গাজীপুর জেলার কাশিমপুর থানার লালদিঘি থানার মৃত এরশাদ আলীর ছেলে।

এ ঘটনায় মাংস বিক্রেতা পাগলা নন্দলালপুর এলাকার মৃত আব্দুল হাইয়ের পুত্র হারুনুর রশীদ(৩৮) বাদী হয়ে ফতুল্লা থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

এ বিষয়ে ফতুল্লা মডেল থানার ইন্সপেক্টর ( তদন্ত) শাহাদাত জানান, আটককৃত সংগ্রাম রবিবার ভোর সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে নিজেকে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের সেনাবহিনীর সদস্য পরিচয় বহন করে পাগলা বাজারে গিয়ে বাদীর মাংসের দোকানে গিয়ে ৬৫ কেজি মাংস দরদাম করে ক্রয় করে।

প্রথমে সে হাতে থাকা লাঠি দিয়ে বাজারে থাকা লোকজনদের পিটিয়ে তাড়িয়ে দেয়। পরবর্তীতে মাংসের দোকানে গিয়ে ৬৫ কেজি মাংস একটি সিএনজিতে তুলে নিয়ে যেতে চাইলে মাংস বিক্রেতা বাধা প্রধান করে।

এ পর্যায়ে মাংস বিক্রেতা বাজার কমিটির লোকজনকে ডাকলে তারা উপস্থিত হয়ে সেনাবাহিনীর সদস্য পরিচয়দানকারী সংগ্রাম কে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে অসংলগ্ন কথাবার্তা বললে তাদের সন্দেহ হয়। পরে সংবাদ পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে আটককৃত সংগ্রাম কে জিজ্ঞাসাবাদ করে, ভুয়া সেনাবাহিনীর সদস্যের বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে তাকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে।

সংবাদটি শেয়ার করুন
0Shares
প্রধান-সংবাদ ফতুল্লা