ঘুম থেকে ডেকে ঘরের ভেতরেই কুপিয়ে গলা কেটে হত্যা, আটক-১

সংবাদটি শেয়ার করুন
0Shares

রিপোর্টার আলোকিত শীতলক্ষ্যা :: আনোয়াার হোসেন (৪২) নামে একব্যাক্তি‘কে ঘুম থেকে ডেকে কুপিয়ে গলা কেটে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে শতাধিক বসতবাড়ি ও দোকানপাটে হামলা, ভাংচুরের ঘটনা ঘটে।

বুধবার (৬ এািপ্রল) দুপুরে রূপগঞ্জ উপজেলার কায়েতপাড়া ইউনিয়নের পূর্বগ্রাম এলাকায় এই হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটে।

নিহত আনোয়ার হোসেন চনপাড়া পূর্নবাসন কেন্দ্রের ৯নং ওয়ার্ডের বাদশা মাঝির ছেলে। এ ঘটনায় পুলিশ অজিউল্লাহ নামে একজনকে আটক করেছে।

স্থাণীয় প্রত্যেক্ষদর্শীরা জানান, কায়েতপাড়া ইউনিয়নের চনপাড়া পূর্নবাসন কেন্দ্রের ৯ নং ওয়ার্ডের বাদশা মাঝির ছেলে আনোয়ার হোসেন কয়েকমাস ধরে পার্শ্ববতী পূর্বগ্রামের বড় মসজিদ সংলগ্ন মাইনুলের ভাড়া বাড়িতে পরিবার নিয়ে বসবাস করে আসছেন।

সোমবার দুপুরে তার মেয়ে আনিকা আক্তার বাড়ীর সামনে দিয়ে হাটতে গেলে পূর্বগ্রামের আতাবুদ্দিনের ছেলে সানাউল্যাহ তাকে কটুক্তি করে। এ নিয়ে আনোয়ার ও তার লোকজনের সাথে সানাউল্লাহর পক্ষের লোকজনের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে রবি, তুষার, সানাউল্লাহসহ উভয়পক্ষের ৫ জন আহত হয়।

এ ঘটনার জের ধরে বুধবার দুপুরে আনোয়ার হোসেনকে ঘুম থেকে ডেকে ঘরের ভেতরেই সানাউল্যাহর ছেলে নাছির, সাহাউদ্দিনের ছেলে অজিউল্লাহসহ বেশ কয়েকজন এলোপাতাড়ি কুপিয়ে গুরুতর জখম করে। পরে মুমূর্ষ অবস্থায় তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষনা দেন।

এই ঘটনার খবর চনপাড়া বস্তিতে ছড়িয়ে পড়লে নিহত আনোয়ারের লোকজন পূর্বগ্রামের শতাধিক বাড়ীঘর ও দোকাপনপাটে হামলা, ভাংচুর ও লুটপাট চালায়।

এসময় হামলাকারীরা ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে এলাকায় আতঙ্ক সৃষ্টি করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এ ঘটনায় পুলিশ সাহাউদ্দিনের ছেলে অজিউল্লাকে আটক করে।

এব্যাপারে রূপগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মাহমুদুল হাসান বলেন, নিহত আনোয়ার হোসেন চনপাড়া পূর্নবাসন কেন্দ্রের যুবলীগের সক্রিয় সদস্য ছিলেন। এছাড়া তার নামে দুটি হত্যাকান্ডসহ এক ডজনের অধিক মামলা রয়েছে।

নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ সদরের জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। পাশাপাশি হত্যাকান্ডে জড়িতদের গ্রেফতারে পুলিশ অভিযানে নেমেছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন
0Shares

আলোকিত শীতলক্ষ্যা

পরিশ্রমকারীব্যক্তি কখনও ব্যর্থ হয়না এগিয়ে যাও সফল হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.